1. altafbabu1@gmail.com : news :
  2. altafbabu1@gmail.com : Satkhira Times : Satkhira Times
February 5, 2023, 12:15 am
Title :
কলারোয়ায় কয়লা ইউনিয়ন আ’লীগের কর্মীসভা কলারোয়ায় গাছে গাছে আমের মুকুলে সমারোহ বিএনপি-জামাতের নৈরাজ্য ও তান্ডবের প্রতিবাদে সাতক্ষীরায় যুবলীগের শান্তি সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল তালায় চুরির অপবাদে নিরীহ ব্যক্তিকে গাছে বেঁধে নির্যাতনের ঘটনায় আদালতে মামলা তালায় ইসলামী ছাত্র আন্দোলনের কমিটি গঠন সাতক্ষীরায় বিশ্ব ক্যান্সার দিবস ৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ শীর্ষক আলোচনা সভা বিএনপি মহাসচিবকে পাঠ্যপুস্তক নিয়ে মন্তব্য করার আগে পড়ে দেখার আহ্বান তথ্যমন্ত্রীর কলারোয়ার কাউরিয়ায় ৯ম তাফসীরুল কুরআন মাহফিল অনুষ্ঠিত ঐহিত্যবাহী পলাশপোল আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রাক্তন ও বর্তমান ছাত্র-ছাত্রীদের মিলন মেলা সাতক্ষীরা জেলা ওয়ার্কার্স পার্টির দু’দিন ব্যাপি প্রশিক্ষণ কর্মশালার উদ্বোধন ও সাধারণ সভা

পানিতে ডুবে মৃত্যু: ২০২২ সালে ৯ বছরের কম বয়সী শিশুদের মৃত্যুহার বেড়েছে ৮%

  • আপডেট সময় Sunday, January 1, 2023

নিজস্ব প্রতিনিধি : দেশে ২০২২ সালে পানিতে ডুবে নয় বছরের কম বয়সী শিশুদের মৃত্যুর হার বেড়েছে। এ সময় পানিতে ডুবে মৃতদের মধ্যে ৮১ শতাংশের বয়স ছিল নয় বছরের কম। আগের বছরের তুলনায় এ হার ৮ শতাংশ বেশি। হতভাগ্য এসব শিশুদের ৬১ শতাংশ তাদের চতুর্থ জন্ম দিনের আগেই মারা গেছে।

গত ১২ মাসে গণমাধ্যমে প্রকাশিত পানিতে ডুবে ১ হাজার ১৩০টি মৃত্যুর ঘটনা বিশ্লেষণ করে এ চিত্র পাওয়া গেছে। গণমাধ্যমের তথ্য অনুসারে ২০২০ ২০২১সালে নয় বছর বয়সীদের পানিতে ডুবে মৃত্যুর হার ছিল যথাক্রমে ৬৫% ও ৭৩%। এ দু’বছরে যথাক্রমে ৮০৭ ও ১ হাজার ৩৪৭টি মৃত্যুর খবর সংবাদমাধ্যমে উঠে আসে।

গ্লোবাল হেলথ অ্যাডভোকেসি ইন কিউবেটরের (জিএইচএআই) সহযোগিতায় গণমাধ্যম উন্নয়ন ও যোগাযোগ বিষয়ক প্রতিষ্ঠান সমষ্টি জাতীয়ও স্থানীয় পর্যায়ের গণমাধ্যম এবং নিউজ পোর্টালেপ্ রকাশিত পানিতে ডুবে মৃত্যুর তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণ করে এ চিত্রপায়।

কোথায় কত মৃত্যু
প্রকাশিত সংবাদ অনুযায়ী ২০২২ সালে চট্টগ্রাম বিভাগে সর্বোচ্চ ২৮২জন পানিতে ডুবে মারা যায়। এছাড়া রংপুর বিভাগে ১৬০, ঢাকায় ১৪৯জন, বরিশালে ১৩১, রাজশাহীতে ১১০,ময়মনসিংহে১০৪, খুলনা বিভাগে ১০৩ জন ও সিলেট বিভাগে ৯১জন মারা যায়।

গণমাধ্যম প্রতিবেদন অনুসারে চট্টগ্রাম জেলায় গত এক বছরে সবচেয়ে বেশি মানুষ পানিতে ডুবে মারা যায়, ৭৩ জন। পরবর্তী স্থানগুলোতে রয়েছে পঞ্চগড়, নেত্রকোণা, চাঁদপুর, কক্সবাজার ও পটুয়াখালী জেলা। এসব জেলায় যথাক্রমে ৪৭, ৪৭, ৪৬, ৪১ ও ৩৬জন মারা যায়।

বয়স
২০২২ সালে পানিতে ডুবে মৃতদের ৯৪ শতাংশের বয়স ১৮ বছরের নিচে। এদের মধ্যে চার বছর বা কম বয়সী ৫৫৬ জন, ৫ থেকে ৯ বছর বয়সী ৩৬৩জন, ১০-১৪ বছরের ১০২ জন এবং ১৫-১৮ বছরের ৪৩জন। ৬৬জনের বয়স ছিল ১৮ বছরের বেশি।

জেন্ডার
পানিতে ডুবে নিহতদের মধ্যে ৪১২জন নারী। এদের মধ্যে কন্যাশিশু ৪০০জন। পুরুষ মারা যায়৭০৮জন, যাদের মধ্যে ৬৬৪ জনশিশু। প্রকাশিত সংবাদ থেকে ১০জনের লৈঙ্গিক পরিচয় নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

দিনের কখন পানিতে ডুবছে
দিনের প্রথম ভাগে অর্থাৎ সকাল থেকে দুপুরের মধ্যে ৩৫৫ জন এবং দুপুর থেকে সন্ধ্যার আগে ৬৮৬ জন মারা যায়।এছাড়া সন্ধ্যায় ৭০ জন মারা যায়। ১৯ জন রাতের বেলায় পানিতে ডোবে।

কোন মাসে বেশি মৃত্যু
গত ১ বছরের হিসাবে দেখাযায়, সবচেয়ে বেশি মৃত্যুর ঘটনা ঘটে আগস্ট মাসে। এ মাসে ১৬২জন পানিতে ডুবে মারা যায়।এছাড়া জুন মাসে ১৪৩জন এবং মে ও সেপ্টেম্বর মাসে ১২৮ জনের মৃত্যুর খবর পত্রিকায় প্রকাশিত হয়।

কারণ
মৃতদের মধ্যে ৯৯০ জন কোনো না কোনো ভাবে পানির সংস্পর্শে এসে ডুবে যায়। ১৪০ জন মারা যায় নৌযান দুর্ঘটনায়।পরিবারের সদস্যদের যথাযথ নজরাদারি না থাকায় সবচেয়ে বেশি সংখ্যক পানিতে ডোবার ঘটনা ঘটে। অধিকাংশ শিশু বড়দের অগোচরে বাড়িসংলগ্ন পুকুর বা অন্য জলাশয়ে চলে যায় এবং দুর্ঘটনার শিকার হয়।

একাধিক স্বজন হারিয়েছে ৪৯ পরিবার
এ সময়ে ৪৯ টিপরিবারের ৯৮ জন সদস্য পানিতে ডুবে মারা যায়। এদের মধ্যে জমজশিশু ছিলো ১৪ জন। এছাড়া শিশুর সঙ্গে ভাই অথবা বোনসহ ৪২জন, চাচাতো, মামাতো বা খালাতো ভাইবা বোনসহ ৪২জন মারা যায়।
##

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ
© All rights reserved © 2021 satkhiratimes24.com
Theme Customized By BreakingNews