দেবহাটা প্রতিনিধি : দেবহাটার সখিপুরে পূর্বশত্রুতার জের ধরে এক অসহায় ব্যক্তির বসতঘরে অগ্নিসংযোগের অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে। রাতের আঁধারে বসত ঘরে অগ্নিসংযোগের পাশাপাশি বাড়ীর আঙ্গিনায় থাকা পুকুরে বিষ প্রয়োগ করা হয়েছে বলেও অভিযোগ ভুক্তভোগীর।

ভুক্তভোগী মাঝ সখিপুর গ্রামের গোলাম রব্বানির ছেলে সাজু আহম্মেদ জানান, কিছুদিন আগে একটি মোটর সাইকেল বন্ধক রাখাকে কেন্দ্র করে উপজেলা শ্রমীকলীগের সাধারণ সম্পাদক আমিরুল ইসলামের সাথে বিরোধ সৃষ্টি হয়।

কয়েক দিনের মধ্যে সাজুকে ফাঁসাতে রাতের আঁধারে তার বাড়িতে কে বা কারা ফেনসিডিল রেখে যায়। এছাড়াও দেনাপাওনা নিয়ে শ্রমিকলীগ নেতা আমিরুল ইসলাম ও তার সহযোগী দক্ষিণ সখিপুর গ্রামের আব্দুল গফ্ফারের ছেলে সাব্বির হোসেন, মৃত ফজর আলীর ছেলে আমিরুল, আব্দুল গফুর গাজীর ছেলে শরিফুল জোট বেঁধে সাজুকে সখিপুর মোড়ে ফেলে মারপিট করে।

এসকল বিষয় নিয়ে ১৮ সেপ্টেম্বর দেবহাটা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেন সাজু আহম্মেদের ভাই রাজু। যার নং-৬২২, ১৮/০৯/২০ ইং। থানায় সাধারণ ডায়েরী করার একদিন পর রবিবার গভীর রাতে সাজুর বাড়িতে অগ্নিসংযোগ ও পুকুরে বিষ প্রয়োগের ঘটনা ঘটে।

অগ্নিসংযোগ ও পুকুরে বিষ প্রয়োগের ঘটনায় দিনমজুর হিসেবে বেশ বড়সড় আর্থিক ক্ষতি হয়েছে বলে দাবী ভুক্তভোগী সাজুর পরিবারের। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ভূক্তভোগী পরিবারের পক্ষ থেকে দেবহাটা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়েরের প্রস্তুতি চলছিল বলে জানা গেছে।