শেখ আরিফুল ইসলাম আশা : সাতক্ষীরায় সদর উপজেলার রইছপুর – খানপুর ভায়া বাঁশতলার সাড়ে তিন কিলোমিটার এলজিইডি-র সড়ক পুনঃ নির্মাণে ঠিকাদারের বিরুদ্ধে অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ এলাকাবাসীর।

এলাকাবাসীর অভিযোগের প্রেক্ষিতে মঙ্গলবার সকালে সরেজমিনে যেয়ে দেখাযায় সড়ক পুনঃ নির্মাণের কাজ চলছে। রাস্তার পাশে গাদা করা ইট ভাংছে শ্রমিকরা। এ ইটে হাতুড়ির আঘাত করতেই গুড়ো হয়ে যাচ্ছে তা।

এসময় খানপুর বাজারের কয়েক জন ব্যাবসায়ী বলেন এই রাস্তা নির্মাণে নিম্ন মানের উপকরণ ব্যবহার করা হচ্ছে। আমরা এই কাজে বাঁধা দিতে ভয় পাচ্ছি। বহুদিন চলাচলের অনুপযোগী থাকার পর রাস্তা তৈরির কাজ চলছে। এই অনিয়মে বাঁধা দিলে রাস্তার কাজ নাকি বন্ধ হয়েযাবে এমনি মন্তব্য করেন তারা।

খানপুরের চাতাল ব্যাবসায়ী মোঃ রবিউল ইসলাম বলেন,নিম্ন মানের নরম ও আমা ইট দিয়ে তৈরি হচ্ছে এই রাস্তা। স্থানীয় বাসিন্দা আক্তারুজ্জামান অভিযোগ করে বলেন এই রাস্তার পুনঃ নির্মাণে ব্যাপক অনিয়ম ও দুর্নীতি করা হচ্ছে। এখুনি প্রশাসন এব্যাপারে হস্তক্ষেপ না করলে অনিয়ম, দুর্নীতির মধ্যেই কাজ শেষ করবে ঠিকাদার।

শিবপুর ইউনিয়নের খানপুর ৩ নং ওয়াডের মেম্বর ইবরাহীম খলিল বলেন, রইসপুর – খানপুর ভায়া বাঁশতলা এলজিইডি-র সাড়ে তিন কিলোমিটার সড়কের পুনঃ নির্মাণের কাজ চলছে। রাস্তার কাজে অনিয়মের বিষয়টি আমার নজরে এসেছে। এবিষয়ে ঠিকাদার ইকবাল জোয়ার্দার এর সাথে কথা বলেছি।

খানপুর বাজারে এসময় কথাহয় সড়ক নির্মাণে তদারকি কাজে নিয়োজিত ঠিকাদার ইকবাল জোয়ার্দার এর ম্যানেজার জিয়াদ আলীর সাথে।

তিনি বলেন রাস্তা ফিনিশিং দেওয়ার জন্য নরম ইট ব্যবহার করা হয়। যেখানে যেমন লাগে সেখানে তেমন উপকরণ ব্যবহার করা হচ্ছে। সিডিউল দেখতে চাইলে তিনি বলেন আমার কাছে নেই। এসময় তিনি আরও বলেন সিডিউল অনুযায়ী সব কাজ করা যায় না। একটু এধার ওধার ও করতে হয়।